Sunday, June 23, 2024
spot_img
More

    মুরাদনগরে উপজেলা নির্বাচনে জামানত হারালেন দশ প্রার্থী

    সিটিভি নিউজ।। এম ফয়জুল ইসলাম, মুরাদনগর (কুমিল্লা) প্রতিনিধি==============
    কুমিল্লা জেলার মুরাদনগর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দিতা করা ১৫জন প্রার্থীর মধ্যে ১০জনই জামানত হারাচ্ছেন। চেয়ারম্যান পদে তিনজন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিনজন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে চারজন। সংবিধানে উপজেলা নির্বাচন বিধি অনুযায়ী কোন প্রার্থী যদি মোট প্রদত্ত ভোটের ১৫শতাংশ না পান তাহলে সেই প্রার্থীর নির্বাচন কমিশনে দেয়া জামানত বাজেয়াপ্ত হবে।

    উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বিধি মোতাবেক চেয়ারম্যান পদের জন্য নির্বাচন কমিশনের অনূকুলে প্রতি প্রার্থী ১লক্ষ টাকা জামানত হিসেবে জমা দিতে হয়। ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদের জন্য প্রতি প্রার্থীর জামানত ৭৫হাজার টাকা।

    উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ের ঘোষিত ফলাফলে দেখা যায়, মুরাদনগর উপজেলা পরিষদ নিবার্চনে মোট ভোটার সংখ্যা ৪ লক্ষ ৬৭ হাজার ৪৪০জন। ২৯শে মে মোট প্রদত্ত ভোটের পরিমান ৯১হাজার ৮৫। চেয়ারম্যান পদে চার প্রার্থী প্রতিদ্বন্দিতা করেন। এরমধ্যে ড. আহসানুল আলম সরকার কিশোর (আনারস) প্রতীকে সবোর্চ্চ ৮৬হাজার ৩৭৫ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার সাথে প্রতিদ্বন্দিতা করা গোলাম সারোয়ার হাসান ঘোড়া প্রতীকে পেয়েছেন ১৪০ ভোট, বশির আহাম্মদ কাপ-পিরিচ প্রতীকে পেয়েছেন ৭৮২ভোট, রাশেদ আলম হায়দার দোয়াত-কলম প্রতীকে পেয়েছেন ৬০ ভোট। চার জানের মধ্যে তিন জনের জামানত বাজেয়াপ্ত হচ্ছে।

    ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দীতা করেন। এর মধ্যে শাহিনুর রহমান শাহিন টিউবওয়েল প্রতীকে ৫৪হাজার ৬৮৭ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দী সৈয়দ তানভীর আহমেদ ফয়সাল চশমা প্রতীকে পেয়েছেন ২২হাজার ১৭৭ভোট। হাবীবুর রহমান উড়োজাহাজ প্রতীকে পেয়েছেন ৯হাজার ৮৪১ ভোট। আতিকুর রহমান হেলাল তালা প্রতীকে পেয়েছেন ৯৯ ভোট। আবদুল্লাহ নজরুল টিয়া পাখি প্রতীকে পেয়েছেন ৫৯৬ ভোট। পাঁচ জানের মধ্যে তিন জনেরই জামানত বাজেয়াপ্ত হচ্ছে।

    মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৬জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দীতা করে চারজনই হারাচ্ছেন জামানত। হাঁস প্রতীকে সবোর্চ্চ ৫৫হাজার ৮৩৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন নতুন মুখ নুরজাহান মজুমদার। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী সানোয়ারা বেগম লুনা সেলাই মেশিন প্রতীকে পেয়েছেন ১৬হাজার ১৪৬ ভোট। কুলসুম বেগম কলস প্রতীকে পেয়েছেন ৫হাজার ৪৯ ভোট, আফজালুন নেছা বাসিত ফুটবল প্রতীকে পেয়েছেন ৪হাজার ৮০২ ভোট। নাজমা আক্তার প্রজাপতি প্রতীকে পেয়েছেন ২হাজার ৭২৯ভোট। আসমা আক্তার পদ্মফুল প্রতীকে পেয়েছেন ২হাজার ৭১৩ভোট।

    উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা সহকারী রিটার্নিং অফিসার সহিদ হোসেন বলেন, উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বিধি অনুযায়ী প্রদত্ত ভোটের ১৫শতাংশের কম ভোট পাওয়া প্রার্থীদের জামানতের অর্থ বাজেয়াপ্ত হবে। মুরাদনগরে চেয়ারম্যান পদে ৩জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩জন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪জনের জামানত বাজেয়াপ্ত হচ্ছে। সংবাদ প্রকাশঃ ৩১-৫-২০২৪ ইং সিটিভি নিউজ এর (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like> See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ছবিতে ক্লিক করুন=

    আরো সংবাদ পড়ুন

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    - Advertisment -
    Google search engine

    সর্বশেষ সংবাদ

    Recent Comments