Monday, May 20, 2024
spot_img
More

    ২০৪১ এর স্মার্ট ও উন্নত বাংলাদেশের সূচনা হবে সদর দক্ষিণ উপজেলা থেকে  : আক্তারুজ্জামান রিপন 

    সিটিভি নিউজ।।     এন.সি জুয়েল, কুমিল্লা প্রতিনিধি =========  শুক্রবার (১০ মে)  কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আনারস প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান (রিপন) ৪নং বারপাড়া ইউনিয়ন চেম্বার বাজার এক নির্বাচনী সভায়  এ কথা বলেন। ২য় ধাপে ২১ মে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। ভোটের সময় ঘনিয়ে আসায় এ নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা এখন তুঙ্গে। রিপন এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা হওয়ার কারণে এলাকার আবাল-বৃদ্ধ-বনিতা স্রোতের মতো আনারসের দিকে ঝুঁকছে। এ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে লড়ছেন চারজন প্রার্থী। তবে ভোটারদের আলোচনা এবং আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছেন তরুণ শিল্পপতি ও বিশিষ্ট সমাজসেবক ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান রিপন।  তার আনারস মার্কায় ভোট দিয়ে কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলাকে স্মার্ট ও আধুনিক রূপে গড়ে তোলার  সুযোগ আহ্বান জানাচ্ছেন তিনি।
    শুক্রবার বিকেলে  বারপাড়া ইউনিয়নের মিছিলে মিছিলে মুখরিত হয় চেম্বার বাজার এলাকা। তরুণ থেকে বৃদ্ধ উপস্থিত ছিলো আনারস প্রতীকের সভায়, যা লোকে লোকারণ্যে হয়ে জনসমুদ্রে পরিনত হয়। এসময় ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান রিপন বলেন, সদর দক্ষিণের মানুষ দীর্ঘদিন ধরে সকল প্রকার উন্নয়ন ও সুবিধা বঞ্চিত। সারা দেশে শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নের জোয়াড় বইলেও কুমিল্লা সদর দক্ষিণে তার ছিটেফোটাও লাগেনি। সদর দক্ষিণের  মানুষ  আজ এতোটাই অবহেলিত যে, ইপিজেড এর বর্জ্যে এই এলাকার মানুষের বসবাস করা অনুপযোগী হয়ে পড়েছে, নষ্ট হচ্ছে ফসলী জমি । যার ফলে কৃষক জমি চাষাবাদের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। ধ্বংসে মুখে এই অঞ্চলের কৃষিজমি, নদী-নালা,খাল-বিল।
    কিন্তু গত ১৫ বছরে যারা ক্ষমতায় ছিল, তাদের আমলে এলাকায় একফোটা উন্নয়নও হয়নি, হয়নি কোনো  সরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, হয়নি কোনো নতুন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান,অদূরদর্শী, অপরিপক্ক  নেতৃত্বের কারণের এই এলাকার কৃষ্টি কালচার আজ বিলুপ্তির পথে।
    তিনি হুশিয়ারি করে বলেন,  নির্বাচনী এলাকায় যারা হোন্ডা এবং ভাড়া করা গুন্ডা নিয়ে মহরা দিচ্ছেন, আমার নেতাকর্মীদের হুমকি দিচ্ছেন, আপনারা সাবধান হয়ে যান, নতুবা এই এলাকার মানুষ আপনাদের ছাড়বে না। তাছাড়া বহিরাগত যারা এসে এলাকার নির্বাচনী পরিবেশে নষ্ট করছে, তারা অতিদ্রুত এই এলাকা ছাড়ুন। তাছাড়া তিনি সমাবেশে আরো বলেন, আমাকে যদি আপনারা নির্বাচিত করেন, ২০৪১ এর স্মার্ট ও উন্নত বাংলাদেশের সূচনা হবে সদর দক্ষিণ উপজেলা থেকে। এই সদর দক্ষিণ উপজেলায় একটি সরকারি কলেজে করবো, তারই সাথে আমার সদর দক্ষিণ কল্যাণ সোসাইটির ১৭ দফাসহ, যা যা এই উপজেলার জন্য প্রয়োজন তা করবো।  এই এলাকাকে মাদক এবং সন্ত্রাসমুক্ত করবো, ইপিজেডের বর্জ্য আসা বন্ধ করবো, এলাকার ইতিহাস, ঐতিহ্য সম্মুন্নত রেখে শেখ হাসিনা সরকারের স্মার্ট ও উন্নত বাংলাদেশ গড়ার অগ্রযাত্রা সাথে শামিল করবো ইনশাআল্লাহ।
    এদিকে ভোটারদের ভাষ্য- রিপন একজন সু-শিক্ষিত এবং যোগ্য ব্যক্তি। দীর্ঘদিন এলাকা তিনি নিজের জনপ্রিয়তা ধরে রাখতে পেরেছেন । বিশেষ করে সদর দক্ষিণে গত ১২ বছর ধরে সামাজিক কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে মানুষের মন জয় করতে পেরেছেন তিনি। তাই অন্য প্রার্থীদের তুলনা ভোটার মাঠে তিনি এগিয়ে রয়েছেন। এসময় সভা মঞ্চে আরো উপস্থিত ছিলেন, সাবেক চেয়ারম্যান প্রার্থী তুহিন, মেম্বার কাশেম, বারপাড়া কেন্দ্র সমন্বয়ক খোরশেদ আলমসহ আরো নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।সংবাদ প্রকাশঃ ১১০৫২০২৪ ইং সিটিভি নিউজ এর  (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like>  See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ছবিতে ক্লিক করুন

    আরো সংবাদ পড়ুন

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    - Advertisment -
    Google search engine

    সর্বশেষ সংবাদ

    Recent Comments