বনের সবর্ত্রই ছড়িয়ে আছে মৃত মানুষের কঙ্কাল, হাড়গোড়

সিটিভি নিউজ।।      যে জঙ্গলে ঘুরতে নয় মরতে যায় মানুষ! পৃথিবীতে এমন অনেক রহস্য আছে, বিজ্ঞানেও যার ব্যাখ্যা মেলে না। যেমন একটি জঙ্গল, যেখানে মানুষে গেলেই নিজেকে শেষ করে ফেলে। জাপানের টোকিও শহর থেকে ১০০ মাইল পশ্চিমে মাউন্ট ফুজির পাদদেশে বাস্তবেই রয়েছে এই জঙ্গল যেখানে মানুষ যায় শুধুমাত্র আত্মহত্যা করতে।

ঘন গাছ-গাছালিতে ভরা নিঝুম এই জঙ্গলের স্থানীয় নাম অকিগাহারা। নিঝুম প্রাকৃতিক পরিবেশের বন ও এর চূড়া তার সৌন্দর্যের চেয়েও বেশি আলোচনায় এসেছে সুইসাইড ফরেস্ট বা আত্মত্যার বন হিসেবে। ৩৫ বর্গকিলোমিটার আয়তনের এই বন থেকে প্রতিবছর গড়ে একশ জন মানুষের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। ২০১০ সালে ২৪৭ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছিলো বলে জানা যায়।

বনের সবর্ত্রই ছড়িয়ে আছে মৃত মানুষের কঙ্কাল, হাড়গোড়।

অকিগাহারো বন নিয়ে দীর্ঘ ৩০ বছর গবেষণা করা ভূতত্ববিদ আজুসা হিয়ানো বলেন, গত বিশ বছরে তিনি নিজে এখানে ব্যক্তিগতভাবে ১শ’টি মৃতদেহ উদ্ধার করেছেন। এছাড়াও অসংখ্য কঙ্কাল ও মানুষের বিভিন্ন রকম কাপড়-চোপড় পেয়েছেন-যা আত্মহত্যার নিদর্শন বহন করে।

স্থানীয়দের মতে অভিশপ্ত এই বন মানুষকে আত্মহত্যা করার জন্য প্ররোচিত করে। এখানে কেউ একা প্রবেশ করলে আদ্ভুত এক জাদুগরী শক্তি তাকে বেঁধে ফেলে, যারফলে জঙ্গলে ছেড়ে বেরনো সম্ভব হয় না। এরপরই আত্মহত্যার পথে এগিয়ে যায় সেই ব্যক্তি।

যদিও বিশেষজ্ঞদের মতে, অর্থনৈতিক মন্দা এবং বেকারত্বের কারণে জাপানে আত্মহত্যার হার এমনিতেই বেশী। আর হতাশাগ্রস্ত মানুষ মুক্তির আশায় এই বনে এসে আত্মহত্যা করছে।

আবার কারও মতে, ১৯৭০ এর দশকে বিখ্যাত এক জাপানি লেখকের একটি গল্প থেকে অনুপ্রাণীত হয়ে প্রথম দিকে এখানে আত্মহত্যা করেছিলন কেউ। এরপর থেকে আরও অনেকেই এই নির্জন বনে আসতে থাকে শুধুমাত্র আত্মহত্যা করতে।

সংবাদ প্রকাশঃ  ১৯২০২০ইং (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like সিটিভি নিউজ@,CTV NEWS24   এখানে ক্লিক করে সিটিভি নিউজের সকল সংবাদ পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুনসিটিভি নিউজ।। See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ক্লিক করুন=

Print Friendly, PDF & Email