সদর দক্ষিণে গাছে-গাছে বিয়ে, মালা বদল!

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন
সিটিভি নিউজ।।      নেকবর হোসেন    কুমিল্লা প্রতিনিধি=====
সদর দক্ষিণে ঢোল-তবলা আর গান-বাজনার মধ্য দিয়েই শুরু হয় বিয়ের অনুষ্ঠান। পরে কাবিননামায় বর-কনের পরিচর্যাকারীদের স্বাক্ষর, গাছে-গাছে মালা বদল, সাক্ষীদের স্বাক্ষরগ্রহণ ও পারস্পরিক মিষ্টিমুখ করার মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয় গাছের সঙ্গে গাছে বিয়ে।
আম গাছের সাথে বিয়ে হলো আমড়া গাছের, আবার কাঠাল গাছের বিয়ে হলো পেয়েরা গাছের সাথে, বর ও কনের পক্ষে স্বাক্ষর দিয়েই বিয়ে অনুষ্ঠিত হলো। বিয়ের কাজী ছিলেন কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুভাশিস ঘোষ।
কোমলমতি শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃক্ষপ্রেম জাগরণের লক্ষ্যে টিফিনের টাকায় ১ লক্ষ গাছের চারা বিতরণ ও গাছে গাছে বিয়ে ব্যতিক্রমী এ আয়োজন করে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘ।
বৃহস্পতিবার (২৮ জুলাই) সকালে কালী বাজার মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে গাছে-গাছে বিয়ে অনুষ্ঠানের পর শিক্ষার্থীদের মাঝে সহস্রাধিক গাছের চারা বিতরণ করা হয়।
লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রীয় সভাপতি কাওসার আলম সোহেলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুভাশিস ঘোষ।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ শাহজালাল, বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আমিনুল ইসলাম, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রৌশন আলম চৌধুরী, গলিয়ারা দক্ষিন ইউপি চেয়ারম্যান জামাল উদ্দিন প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।
লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘের ব্যতিক্রমী উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, গাছ আমাদের পরম বন্ধু। পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা ও সৌন্দর্য বর্ধনে গাছ রোপণের বিকল্প নেই। আমি আশা করি, লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘে থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে অন্যরাও সবুজায়নের লক্ষ্যে নিয়মিত বৃক্ষরোপণ করবে ও গাছের যত্ন নিবে।
সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি কাওসার আলম বলেন, মানুষের প্রতি মানুষের সম্পর্ক বাড়াতেই এমন বিন্ন রকম উদ্যোগ নেওয়া। গাছে গাছে বিয়ের মাধ্যমে  শিক্ষার্থীদের সাথে অন্যরকম আত্মীয়তা হলো। তিনি আরো বলেন আগামী তিনমাসে সারাদেশে টিফিনের টাকায় ১ লাখ গাছের চারা বিতরণ করা হবে।সংবাদ প্রকাশঃ  ২-০-২০২২ইং সিটিভি নিউজ এর  (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like  See More =আরো বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন=  

Print Friendly, PDF & Email