নারায়ণগঞ্জ পপুলারের কান্ড : দেড় মাস পর করোনার রিপোর্ট পজেটিভ

সিটিভি নিউজ, এম আর কামাল, নারায়ণগঞ্জ থেকে জানান : কোভিড-১৯ বা করোনা পরীক্ষার নমুনা দেওয়ার এক মাস পর পজেটিভ রিপোর্ট মোবাইলে এসএমএস করেছে নারায়ণগঞ্জের পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার। এতে করে সুস্থ হওয়ার পরও আবারও পজেটিভ রিপোর্ট পেয়ে বিব্রত ভুক্তভোগী রোগী ও তার পরিবার। এ বিষয়ে সচেতন হওয়ার জন্য পপুলার কর্তৃপক্ষকে আহবান জানিয়েছেন তারা।
২৯ এপ্রিল বৃহস্পতিবার বিকেলে শহরের টানবাজার এসএম মালেহ রোডের বাসিন্দা প্রতিক ঘোষাল পলের মোবাইলে করোনা পজেটিভেরে রিপোর্ট আসে।
এ বিষয়ে প্রতিক ঘোষাল ফেসবুকে নিজের অ্যাকাউন্ট থেকে এসএমএসের ছবি সহ স্ট্যাটাস দেন। এতে তিনি লেখেন, টেস্ট করার এক মাস ৪ দিন পর পপুলার ডায়াগনেস্টিক সেন্টার রিপোর্ট এসএমএস করছে।
এসএমএসে লেখা, নারায়ণগঞ্জের প্রতীক ঘোষাল (৩৫) পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারের কোভিড-১৯ নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজেটিভ এসেছে। তারিখ ২৫-০৩-২০২১ইং। ভবিষ্যতে পরামর্শ নেওয়ার জন্য ১৬২৬৩ নাম্বারে যোগাযোগের জন্য বলেন।
প্রতীক ঘোষাল এ প্রতিবেদককে বলেন, এক সপ্তাহ আগেই ৩০০ শয্যা হাসপাতালের কোভিড-১৯ এর নমুনা পরীক্ষায় আমার নেগেটিভ রিপোর্ট এসেছে। এ নিয়ে দ্বিতীয়বার পরীক্ষায় রিপোর্ট নেগেটিভ। কিন্তু আজকে দুপুরে হঠাৎ করে এসএমএস আসে যেখানে লেখা আমার করোনা পজেটিভ। বিষয়টি দেখে আমরা সকলেই বিব্রত হই। পরে ভালো ভাবে পড়ে দেখি সেটা এক মাস আগে পপুলারে যখন নমুনা পরীক্ষা করিয়ে ছিলাম তখনকার রিপোর্ট এসএমএস করেছে। পরে মনের ভয়টা দূর হয়।
তিনি বলেন, করোনায় আমার শারীরিক অবস্থা অনেকটাই খারাপ ছিল। আমাকের হাসপাতালে ভর্তি করানোর জন্য পপুলার থেকে বাসায় এসে নমুনা নেয়। এর জন্য ৪৫০০ টাকা দিতে হয়েছে। তখন তাৎক্ষনিক হাসপাতালে ভর্তির জন্য একটা পজেটিভ রিপোর্টের কপি দেয়। যার জন্য তখন হাসপাতালে ভর্তি হতে পেরেছি। যদি এর এসএমএসের আশায় থাকতাম তাহলে আর চিকিৎসা নেওয়া হতো না।
তিনি বলেন, যা হয়েছে সেটা নিয়ে আর কিছুই বলার নেই। তবে পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারের কর্তৃপক্ষকে বলবো তারা যেন এসব বিষয়ে আরো সর্তক হয়।

সংবাদ প্রকাশঃ  ০২২০২১ইং (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like সিটিভি নিউজ@,CTVNEWS24   এখানে ক্লিক করে সিটিভি নিউজের সকল সংবাদ পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুনসিটিভি নিউজ।। See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ক্লিক করুন=   

Print Friendly, PDF & Email