চুল পড়া কমে যে ৮ খাবার

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন

সিটিভি নিউজ।। লাইফ স্টাইল।।       চুল পড়া সমস্যা সবারই কমবেশি দেখা যায়। নারী-পুরুষ নির্বিশেষ সবার জন্যই এটি বেশ চিন্তার। চুল পড়া কমাতে আমরা সবাই বিভিন্ন ঘরোয়া প্রতিকার, নামিদামি প্রোডাক্ট ব্যবহার করে থাকি, কিন্তু কিছুতেই ভালো ফল মেলে না।আমাদের স্বাস্থ্য এবং ত্বকের মতো, চুলের স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রেও প্রোটিন, ভিটামিনের প্রয়োজন হয়। তাই খাবারের পাতে রাখুন এমন কিছু, যা আপনার চুল ঝরা তো কমাবেই, সঙ্গে চুলকে করে তুলবে স্বাস্থ্যকর। দেখে নিন, চুল পড়া বন্ধ করতে কোন কোন খাবার আপনার খাদ্য তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করবেন।

# ডিম: চুলের যত্নে সবচেয়ে উপকারী ডিম। ডিম প্রোটিন, বায়োটিন, ভিটামিন বি১২, আয়রন, জিংক এবং ওমেগা ৬ ফ্যাটি অ্যাসিডের উৎস। এই ভিটামিন এবং খনিজগুলোর মধ্যে যে কোনো একটির অভাব হলেও, চুলের গুণমান খারাপ হতে পারে। তাই চুল পড়া বন্ধ করতে খাদ্য তালিকায় ডিম অবশ্যই রাখুন।

# গাজর: গাজর কেবলমাত্র চোখের ক্ষেত্রে নয়, ত্বক এবং চুলের ক্ষেত্রেও অত্যন্ত উপকারী। গাজর ভিটামিন-এ সমৃদ্ধ। এটি স্ক্যাল্পে পুষ্টি সরবরাহ করে। চুলের গোড়া শক্ত হয়, চুলকে ময়শ্চারাইজড রাখে। তাই গাজরকে অবশ্যই খাদ্যতালিকায় অন্তর্ভুক্ত করুন।

# পালং শাক: পালংশাক ভিটামিন এ, ভিটামিন সি এবং ফোলেট এবং আয়রনের উৎস। এগুলো সবই চুলের স্বাভাবিক বৃদ্ধির ক্ষেত্রে অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। এ ছাড়া আপনি যদি চুল পড়া রোধ করতে চান, তাহলে পালংশাক অবশ্যই খাদ্যতালিকায় অন্তর্ভুক্ত করুন।

# সবুজ কড়াইশুঁটি: চুলের স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রে সবুজ কড়াইশুঁটি অত্যন্ত উপকারী। সবুজ কড়াইশুঁটি ভিটামিন বি, জিংক এবং আয়রনের উৎস। স্বাস্থ্যকর চুল বজায় রাখার জন্য এগুলো অপরিহার্য। তাই খাদ্য তালিকায় অন্যান্য শাকসবজির পাশাপাশি, সবুজ কড়াইশুঁটিও অন্তর্ভুক্ত করুন।# মেথি বীজ: মেথির বীজ ফলিক অ্যাসিড, ভিটামিন এ, ভিটামিন সি, ভিটামিন কে সমৃদ্ধ। এটি চুল পড়া বন্ধ করতে অত্যন্ত জনপ্রিয় প্রতিকার হিসেবে বিবেচিত।

# লো ফ্যাট ডেয়ারি প্রোডাক্ট: চুলের বৃদ্ধির ক্ষেত্রে, প্রোটিন এবং ক্যালসিয়াম অত্যন্ত প্রয়োজনীয় উপাদান। তাই আপনার খাদ্য তালিকায় অবশ্যই দই কিংবা পনির অন্তর্ভুক্ত করুন। ভালো ফল পেতে চাইলে, জিংক এবং ওমেগা ৩ ফ্যাটি অ্যাসিড সমৃদ্ধ আখরোট কিংবা ফ্ল্যাক্সসিডও যোগ করতে পারেন।

# ওটস: ওটস কেবলমাত্র ফাইবার সমৃদ্ধ নয়, এতে জিংক, আয়রন এবং ওমেগা ৬ ফ্যাটি অ্যাসিডের মতো অন্যান্য প্রয়োজনীয় পুষ্টিও আছে। ওমেগা ৬ ফ্যাটি অ্যাসিড ত্বক ভাল রাখে, চুলের বৃদ্ধিতেও অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। তাই আপনার রোজকার ব্রেকফাস্টের তালিকায় ওটস অন্তর্ভুক্ত করুন।

# মিষ্টি আলু: মিষ্টি আলু ভিটামিন-এ শোষণ করতে পারে। এ ছাড়া এগুলো বিটা-ক্যারোটিন সমৃদ্ধ। চুলের ঘনত্ব এবং সিবাম উৎপাদনের জন্য ভিটামিন এ অপরিহার্য, যা আপনার চুলকে সুস্থ এবং প্রাকৃতিকভাবে আর্দ্র রাখে। তাই ডায়েটে মিষ্টি আলু অন্তর্ভুক্ত করতে পারেন।

সংবাদ প্রকাশঃ  ২৯-১০-২০২১ইং । (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like  See More =আরো বিস্তারিত জানতে ছবিতে/লিংকে ক্লিক করুন=  

Print Friendly, PDF & Email