ঈদে শাড়ী কিনে না দেয়ায় সাপাহারে স্ত্রীর আত্মহত্যা

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন

সিটিভি নিউজ।।    প্রদীপ কুমার সাহা, সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর সাপাহারে ঈদের কাপড় ও মাংস কেনাকে কেন্দ্র করে স্বামী-স্ত্রীর মাধ্যে কলহের জেরে স্বামীর উপর অভিমান করে স্ত্রী কুলসুম বেগম (২০) নামের এক গৃহ বধু আত্মহত্যা করেছে।

ঘটনা সূত্রে ও নিহত কুলসুমের স্বামীর দেয়া ভাষ্য মতে অভাবী সংসারে ঈদের জন্য স্ত্রীকে একটি নতুন শাড়ী ও মাংস কিনে দিতে না পারায় ঈদের রাতে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বাধে।

এরই জেরে গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত ৯টার দিকে স্ত্রী কুলসুম ১৩মাস বয়সী সন্তানকে ঘুমিয়ে রেখে স্বামীর অজান্তে গলায় ওড়না পেচিয়ে ঘরের মধ্যে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে।

পরে তার স্বামী হানিফ আলী জানতে পেরে স্ত্রীর ঝুলন্ত লাশ নামিয়ে চৌকির মধ্যে শোয়ায়ে রেখে শশুড় বাড়ীতে সংবাদ দেয়।

এর পর তার শশুর বাড়ীর লোকজন এসে ঘটনা জানাজানি হলে বুধবার সকালে সাপাহার থানার ওসি (তদন্ত) আল মাহমুদ ও এস আই জিন্নাত হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠায়।

তবে কুলসুম বেগমের বাবার বাড়ীর লোকজন সহ এলাকাবাসীর মুখে এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা এনিয়ে এলাকায় বেশ গুনঞ্জন শোনা যাচ্ছে।

বিষয়টি নিয়ে সাপাহার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তারেকুর রহমান সরকারের সাথে কথা হলে তিনি জানান, লাশটি উদ্ধার করে প্রাথমিক ভাবে থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
ঘটনার তদন্ত স্বাপেক্ষে এর সঠিক রহস্য জানা যাবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

গৃহবধু উপজেলার ভাতকাড়া মোড়ে বসবাসকারী হানিফ আলীর স্ত্রী ও মালিপুর গ্রামের জিয়ারউদ্দীন এর মেয়ে বলে জানা গেছে।

সংবাদ প্রকাশঃ  ০৪-০-২০২২ইং সিটিভি নিউজ এর  (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like  See More =আরো বিস্তারিত জানতে ছবিতে/লিংকে ক্লিক করুন=  

Print Friendly, PDF & Email