বুড়িচংয়ে সেরেনেটি’র গাছ পেয়ে অন্যরকম আনন্দে মেতে উঠে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন
সিটিভি নিউজ।।      সৌরভ মাহমুদ হারুন  সংবাদদাতা জানান =====
কেউ পেয়ারা কেউ জলপাই কেউ সোনালু কেউ অলবড়ই পছন্দসই গাছের চারা পেয়ে অভিভাবকদের পাশাপাশি শিশু শিক্ষার্থীরা আনন্দে মেতে উঠে। শিশুরা গাছের চারা পেয়ে ভারি খুশি আর অভিভাবকরা চায় পছন্দসই গাছের চারা। এ যেন এক অন্যরকম আনন্দ। শিশুরা গাছের চারা নিয়ে আনন্দে ফিরছেন অভিভাবকদের সাথে।
‘নির্মল বাতাস প্রাকৃতিক পরিবেশ’এ স্লোগানকে সামনে রেখে মঙ্গলবার(৩০ আগস্ট ২০২২) বুড়িচং উপজেলার শংকুচাইল রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুলের শিশু শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মাঝে ৫ শতাধিক গাছের চারা বিতরণ করা হয়। সেরেনিটি বুড়িচং-ব্রাহ্মণপাড়া এর সহযোগীতায় অনুষ্ঠিত পরিবেশ রক্ষায় বৃক্ষের গুরুত্বশীর্ষক আলোচনা সভা ও গাছের চারা বিতরণ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সেরেনিটির প্রধান সমন্বয়কারী ও প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান সাংবাদিক মোবারক হোসেন।
সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শংকুচাইল ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ছাদেক ভূইয়া, শংকুচাইল কেন্দ্রিয় জামে মসজিদের খতিব হাফেজ মাওলানা শাহ্জাহান সারোয়ার, অধ্যাপক মনিরুল ইসলাম।উক্ত অনুষ্ঠানটি পরিচালানা করেন শংকুচাইল রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুলের অধ্যক্ষ কাউসার আলম। অনুষ্ঠান শেষে অনেক প্রজাতির ঔষধী,বনজ ও ফলজ বৃক্ষের গাছের চারা বিতরণ করা হয়। বিতরণকৃত ফলজ এবং ঔষধী চারাসমূহের মধ্যে রয়েছে পেঁপে, পেয়ারা, জলপাই, সোনালু, কৃষ্ণচ‚ড়া, বহেরা, আমলকি, আনার, নিম, এলাচিলেবু, বকুল, চালতা,অলবড়ই, কাঠ বাদাম, আতা ফল ইত্যাদি।
সেরেনিটির প্রধান সমন্বয়কারী ও প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান সাংবাদিক মোবারক হোসেন এ সময় বক্তব্য প্রদানকালে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘একজন মানুষের বেঁচে থাকতে প্রতিদিন প্রায় তিন সিলিন্ডারের মতো অক্সিজেন প্রয়োজন পড়ে। দিন দিন মানুষ বাড়ছে কিন্তু সে তুলনায় বাড়ছে না গাছের সংখ্যা। আমাদের নিজেদের সুস্থ ও সুন্দরভাবে বেঁচে থাকতে হলে বৃক্ষরোপণ আবশ্যক। তিনি উপস্থিত শিক্ষার্থীদের শপথ করান ‘সেরেনেটি’ থেকে প্রাপ্ত গাছের চারাগুলো সঠিকভাবে বাড়িতে রোপণ করতে এবং সেগুলোর যত্ন নেওয়ার আহ্বান জানান তিনি।’সংবাদ প্রকাশঃ  ৩১-০-২০২২ইং সিটিভি নিউজ এর  (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like  See More =আরো বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন=  

Print Friendly, PDF & Email