বরিশাল-ঝালকাঠি মহাসড়কে অবৈধ চেকপোস্ট-চাদাবাজী সাংবাদিককে হত্যার হুমকি দিয়ে অসুস্থ সন্তানসহ গাড়ী আটক

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন

সিটিভি নিউজ।। নজরুর ইসলাম   ঝালকাঠি প্রতিনিধি:: বরিশাল-ঝালকাঠি মহাসড়কের নলছিটি উপজেলার ষাইটপাকিয়া বাজার এলাকায় চেকপোস্টের নামে বাস মালিক সমিতির লোকজন এক সাংবাদিককে অসুস্থ শিশুপুত্রকে নিয়ে চিকিৎসার জন্য যাওয়ার পথে মাহিন্দ্র আটকে চাদাবাজী ও হয়রানির অভিযোগে নলছিটি থানায় জিডি করেছে। ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতির নামে একটি চাদাকাজ চক্র প্রকাশ্য জনসম্মুখে অবৈধভাবে চেকপোস্ট বসিয়ে থ্রি-হুইলার (মাহিন্দ্র), অটোগাড়ী থামিয়ে চালকদের মারধর, গাড়ি ভাঙচুর ও যাত্রীদের কাছ থেকে চাদা উত্তোলনের ঘটনায় প্রায়শই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটছে। আর এতে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে এ রুটে চলাচলকারী সাধারন যাত্রীরা। সর্বশেষ গত মঙ্গলবার অবৈধ চেকপোস্টে অবস্থানরত চাদাবাদ চক্রের লোকজন এক সংবাদকর্মীর সাথে এহেন ঘটনা ঘটালে ভূক্তভুগী সাংবাদিক ৭ অক্টোবর বুধবার দুপুরে নলছিটি থানায় এ সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করে।
জিডি সূত্রে ও সাংবাদিকের সাথে আলাপকালে জানায়, গত ৬ অক্টোবর সকাল ১০টার দিকে আঞ্চলিক দৈনিক বরিশালের কথা পত্রিকার নিজস্ব প্রতিবেদক মো. জসিম উদ্দিন তার গুরুতর অসুস্থ্য ৩ বছর বয়সী ছেলেকে নিয়ে মাহিন্দ্রাযোগে (থ্রি-হুইলার) ষাইটপাকিয়া থেকে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যাচ্ছিলেন।
মাহিন্দ্রটি ষাইটপাকিয়া বাজার এলাকায় একটি অবৈধ চেকপোস্টের কাছে পৌঁছলে মো. মন্নান (মনা) নেতৃত্বে ৪/৫ জন লোক নিজেদের ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতির প্রতিনিধি পরিচয় দিয়ে গাড়িটি আটকে ৫শ টাকা দাবী করে অন্যথায় গাড়ী যেতে পারবেনা বলে দাবী করে। এসময় তারা অসুস্থ্য রোগীসহ মাহিন্দ্রার সকল যাত্রীদের নামিয়ে দেন এবং ড্রাইভারকে মারধর করেন।
জসিম উদ্দিন নিজের পরিচয় দিয়ে অসুস্থ্য ছেলেটিকে বাঁচাতে মাহিন্দ্রাটিকে ছেড়ে দিতে তাদের কাছে অনুরোধ করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে উক্ত চেকপোস্টের লোকজন উল্টো আরো ক্ষিপ্ত হয়ে নানাধরনের গালাগাল ও হিং¯্র কথাবার্তা বলতে শুরু করে।এসময় কথাকাটির এক পর্যায়কে তাকে খুন-জখমেরও হুমকি দেয়। এ ঘটনায় জসিম উদ্দিন বাদি হয়ে নলছিটি থানায় জিডি করেন।
নলছিটির থানার ডিউটি অফিসার এএসআই মিনহাজ বলেন, জিডির বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।সংবাদ প্রকাশঃ  ০৯১০২০২০ইং (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like সিটিভি নিউজ@,CTVNEWS24   এখানে ক্লিক করে সিটিভি নিউজের সকল সংবাদ পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুনসিটিভি নিউজ।। See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ক্লিক করুন=   

Print Friendly, PDF & Email