নারায়ণগঞ্জ আদালতে সেই নুর হোসেন : তিন মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন

সিটিভি নিউজ, এম আর কামাল, নারায়ণগঞ্জ থেকে জানান : নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুন মামলায় ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্ত প্রধান আসামি সাবেক আওয়ামীলীগ নেতা ও সিদ্ধিরগঞ্জ শিল্পাঞ্চলরে গড ফাদার নূর হোসেনের বিরুদ্ধে দায়ের করা অস্ত্র, মাদক ও চাঁদাবাজিসহ তিন মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বুধবার (১৪ অক্টোবর) অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ দ্বিতীয় আদালতে ওই সাক্ষ্যগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। আদালতের বিচারক বেগম সাবিনা ইয়াসমিন আগামী ১২ নভেম্বর পরবর্তী শুনানীর দিন ধার্য করেছেন।
এর আগে নূর হোসেনকে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে আদালতে আনা হয়। এরজন্য সকালে আদালত পাড়ায় বাড়তি নিরাপত্তা জোরদার করা হয় এবং মামলার কার্যক্রম শেষে নুর হোসেনকে আবারো গাজীপুরে কাশিমপুর কারাগারে প্রেরণ করা হয়।
প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে ৭ খুনের পর নূর হোসেন ভারতে পালিয়ে গেলে তার বৈধ অস্ত্রের লাইসেন্স বাতিল করা হয়। এছাড়া, তার সিদ্ধিরগঞ্জের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে বেশ কয়েকটি অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। এসব ঘটনায় নূর হোসেনের বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে ৩টি মামলা করে পুলিশ। এছাড়া ২০১৪ সালের ১২ জুন ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবীর অভিযোগে অটোরিকশা চালক সাইদুল ইসলামের মামলায় নূর হোসেন, তার ভাই নূর উদ্দিন, তাদের ভাতিজা ছাত্রলীগ নেতা নাসিক কাউন্সিলর শাহজালাল বাদল, লোকমানসহ ৪ জনকে আসামী করা হয়।
এছাড়া শিমরাইলে নূর হোসেনের মাদক স্পট থেকে ২৯০০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধারের মামলায় বাদী পুলিশের এসআই শওকত হোসেন। ২০১৩ সালের ৩০ মে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার হিরাঝিল এলাকার ইকবাল হোসেন নামের এক ব্যক্তির কাছে নূর হোসেন ৫ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। দাবিকৃত চাঁদা না পেয়ে ইকবালের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাংচুর করে নূর হোসেন ও তার সহযোগীরা। এ ঘটনায় ইকবাল হোসেন বাদী হয়ে নূর হোসেন তার ভাতিজা কাউন্সিলর শাহজালাল বাদলসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি চাঁদাবাজির মামলা দায়ের করেছিলেন।
উল্লেখ্য ২০১৬ সালের ২৫ জানুয়ারি নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ আদালত ৭ খুন মামলার রায়ে নুর হোসেনসহ ২৬ জনকে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দেন। বর্তমানে কাশিমপুর কারাগারের কনডেম সেলে রয়েছেন নুর হোসেন।সংবাদ প্রকাশঃ  ১৪১০২০২০ইং (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like সিটিভি নিউজ@,CTVNEWS24   এখানে ক্লিক করে সিটিভি নিউজের সকল সংবাদ পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুনসিটিভি নিউজ।। See More =আরো বিস্তারিত জানতে লিংকে ক্লিক করুন=   

Print Friendly, PDF & Email