দেবীদ্বারের এমপি কর্তৃক চেয়ারম্যানকে লাঞ্ছিত ও মারধরের প্রতিবাদে ঢাকা-চট্রাম মহাসড়কে ঝাড়ু মিছিল

সিটিভি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন

-প্রতিবাদ সমাবেশ; চেয়ারম্যানের সমর্থকদের উপর এমপির লোকদের হামলায় আহত অন্ত:ত-১৫
সিটিভি নিউজ।।       এবিএম আতিকুর রহমান বাশার ঃ সংবাদদাতা জানান ====
কুমিল্লা-৪ (দেবীদ্বার) আসনের এমপি কর্তৃক নিজ নির্বাচনী এলাকার উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে লাঞ্ছিত ও মারধর করার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ ও ঝাড়ু মিছিল করেছে স্থানীয় আ’লীগ এবং এর অঙ্গসংগঠন সমূহের নেতা কর্মীরা।
বুধবার সকাল সাড়ে ১০টা থেকে দুপুর সোয়া ১২টা পর্যন্ত আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গসংগঠনের কয়েকশত নারী-পুরুষ ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের মাধাইয়া বাস ষ্ট্যাশন এলাকায় ওই প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ করে। এ সময়ে সড়কের দু’পাশে কয়েকশত যানবাহন আটকে পড়ে।
অপরদিকে বিক্ষোভ সমাবেশে যোগদান করতে আসা নেতা-কর্মী ও সমর্থকদের গাড়িবহরে এমপির সমর্থকদের হামলায় অন্তত: ১৫ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। মারাত্মক আহত ৫ জনকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানা যায়।
সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, বরকামতা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ¦ মোঃ নুরুল ইসলাম, ভাণী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান হাজী মোঃ জালাল উদ্দিন, সুলতানপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মোঃ হুমায়ুন কবির, রাজামেহার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ জসীম উদ্দিন, ফতেহাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান কেএম কামরুজ্জামান মাসুদ, বরকামতা ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি মোঃ শাহ আলম, ভাণী ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি মোঃ জহিরুল ইসলাম ভূঁইয়া, সাধারন সম্পাদক মোঃ আলী আশরাফ মেম্বার প্রমূখ।
উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও কুমিল্লা (উঃ) জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আবুল কালাম আজাদকে লাঞ্ছিত ও মারধরের প্রতিবাদে আয়োজিত সমাবেশে বক্তারা বলেন, একজন এমপির কাছে এমন প্রত্যাশা দেবীদ্বারবাসী করেনি। স্থানীয় এমপি রাজী ফখরুলের এ ন্যাক্কারজনক ঘটনায় দেশব্যপী আলোচনাও সমালোচনার ঝর উঠে।
কুমিল্লা (উঃ) জেলা যুবললীগ নেতা এডভোকেট মোঃ শাহাদাত হোসেন শিমুল জানান, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও কুমিল্লা (উঃ) জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আবুল কালাম আজাদকে স্থানীয় এমপি কর্তৃক লাঞ্ছিত ও মারধর করার প্রতিবাদে আয়োজিত সমাবেশে যোগদানের উদ্দেশ্যে যাওয়ার পথে চেয়ারম্যানের সমর্থকদের গাড়িবহরে এমপির সমর্থক কুমিল্লা উত্তর জেলা সেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন সরকার ও তার ভাগিনা সৈকতের নেতৃত্বে সশ¯্র হামলা চালানো হয়। এসময় অন্ততঃ ১৫/১৬ জন আহত হয়। মারাত্মক আহত উপজেলার মোহাম্মদপুর গ্রামের মৃত; আব্দুল ওয়াহেদের ছেলে মোঃ রফিকুল ইসলাম, এলাহাবাদ পূর্বপাড়া উটখাড়া গ্রামের আবুল কাসেমের ছেলে খোরশেদ আলম, একই গ্রামের হামিদ আলীর ছেলে মোহাম্মদ আলী, ধামতী গ্রামের মেহেদী হাসান ও মফিজুল ইসলাম পিতা-অজ্ঞাতসহ ৫জনকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
উল্লেখ্য গত ১৬ জুলাই জাতীয় সংসদ ভবনের এলডি হলে দেবীদ্বার উপজেলা আওয়ামীলীগের সম্মেলন প্রস্তুতি সভায় একটি ইউনিয়ন কমিটির নাম ঘোষণাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় এমপি রাজী মোহাম্মদ ফখরুল’র কর্তৃক লাঞ্ছিত ও মারধোরের শিকার হন দেবীদ্বার উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং কুমিল্লা (উঃ) জেলা আ’লীগের সাংগনিক সম্পাদক মোঃ আবুল কালাম আজাদ। ওই ঘটনার পর থেকে দেবীদ্বারের রাজনৈতিক পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে। উভয় পক্ষের প্রতিবাদ বিক্ষোভ মিছিল সমাবেশ অব্যাহত আছে।
দাউদকান্দি-চান্দিনা সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার ফয়েজ ইকবাল বলেন, বিক্ষোভ মিছিলকালে মাধাইয়া এলাকায় কোন সহিংসতার ঘটনা ঘটেনি, মিছিলের কারনে যান চলাচলে তেমন বড়ধরনের কোন প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়নি। যোগাযোগ ব্যবস্থা স্বাভাবিক ছিলো।
দেবীদ্বার থানার অফিসার ইনচার্জ কমল ক্ষ্ণৃ ধর জানান, দেবীদ্বার বাগুর এলাকায় হামলার সংবাদ শুণে অতিরিক্ত নিয়ে ঘটনাস্থলে যেয়ে পস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছি। একটি গাড়ি ভাংচুর করা হয়েছে। ২/৩ জন ইহত হওয়ার সংবাদ পেয়েছি। ওই ঘটনায় এখনো কেউ থানায় অভিযোগ করেনি।

সংবাদ প্রকাশঃ  ২০-০-২০২২ইং সিটিভি নিউজ এর  (সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে দয়া করে ফেসবুকে লাইক বা শেয়ার করুন) (If you think the news is important, please share it on Facebook or the like  See More =আরো বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন=  

Print Friendly, PDF & Email